এক প্রমোদতরির করুণ পরিণতি

-মনিটর অনলাইন Date: 28 June, 2022
ppppppppppppppppppppp1.jpg

২০ তলা এক প্রমোদতরি! থাকবে সিনেমা হল, ওয়াটার পার্কসহ বিনোদনের সব রকম ব্যবস্থা। একদম ওপরে থাকবে বিশাল সুইমিং পুল ও থিম পার্ক। এমন পরিকল্পনা নিয়েই এগোচ্ছিল জাহাজ নির্মাতা প্রতিষ্ঠান ‘এমভি ওয়েরফতেন’।
৯ হাজার যাত্রী পরিবহনে সক্ষম ‘গ্লোবাল ড্রিম ২’ নামের জাহাজটির যাত্রা শুরু হওয়ার কথা ছিল ২০২১ সালে।
নির্মাণকাজও প্রায় শেষ দিকেই ছিল। তবে মালিকানা প্রতিষ্ঠানের আর্থিক সংকটে খোলা সাগরের পরিবর্তে প্রমোদতরিটিকে প্রথম (এবং শেষ) যাত্রাই করতে হচ্ছে জাহাজ ভাঙার ইয়ার্ডের দিকে! 
নির্মাণাধীন জাহাজটির জন্য কাল হয়ে এসেছিল করোনা। এই মহামারিতে সবচেয়ে বিপর্যস্ত হয়েছে পর্যটন খাত। ব্যবসা বন্ধ হওয়ায় একরকম পথে বসেছে এমভি ওয়েরফতেন। দেনা মেটাতে নিজেদের দেউলিয়া ঘোষণা করেও শেষ হয়নি। বিক্রি করতে হচ্ছে স্থাবর-অস্থাবর নানা সম্পত্তি।
শুরুতে বিশাল জাহাজটি বিক্রি করার চেষ্টা করে মালিকপক্ষ। ক্রেতা না পাওয়ায় শেষ পর্যন্ত সিদ্ধান্ত হয়েছে ইঞ্জিন ও অন্যান্য যন্ত্রপাতি খুলে বাজারে বিক্রি করার। আর কাঠামোটি বিক্রি করা হবে স্ক্র্যাপ অর্থাৎ চলতি কথায় ‘ভাঙ্গারি’ হিসেবে।
অর্থের অভাবে নিজেদের জাহাজ তৈরির ডকটিও জার্মান সংস্থা থাইসেনক্রুপের কাছে বিক্রি করে দিয়েছে এমভি ওয়েরফতেন। চলতি বছরের শেষেই ডকটি খালি করতে হবে। তাই জাহাজটি ভেঙে বিক্রি করা ছাড়া উপায় দেখছে না প্রতিষ্ঠানটি। জাহাজটির নাম দেখেই বোঝা যায় আরো একটি প্রমোদতরি আছে এমভি ওয়েরফতেনের। তার নাম গ্লোবাল ড্রিম।
-B

Share this post

Also on Bangladesh Monitor

Subscribe Us

Please Subscribe and get updates in your inbox. Thank you.